সিরাজগঞ্জে পরিবহন তো নয় এ যেন মগের মুল্লুক
১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০৮:২৮ অপরাহ্ন


  

  • সিরাজগঞ্জ/ যোগাযোগ:

    সিরাজগঞ্জে পরিবহন তো নয় এ যেন মগের মুল্লুক
    ২৮ আগস্ট, ২০১৮ ১১:১১ পূর্বাহ্ন প্রকাশিত

    ঈদের পূর্ববর্তী সময় গড়িয়ে গেলে ও শেষ হয়নি ঈদের পরবর্তী আমেজ। সেই আমেজের অজু হাতে সিরাজগঞ্জে বাস,সিএনজি,অটো বাইক ও রিক্সার মতো পরিবহনগুলোতে যাত্রীদের গুনতে হচ্ছে নির্ধারিত ভাড়ার দিগুণ ভাড়া।


    সিরাজগঞ্জে ঈদ পূর্ববর্তী ও পরবর্তী সময়ে লোকাল থেকে দূরপাল্লার সব পরিবহন ইচ্ছে মতো ভাড়া আদায় করছে । সব ধরনের বাস, সিএনজি অটোরিকশা ও ট্যাক্সিতে যাত্রীদের কাছে তিনগুণ,চারগুণ ভাড়া হাঁকানো হচ্ছে। ফলে জেলার বিভিন্ন বাস ও সিএনজি স্টেশনে যাত্রীদের সঙ্গে পরিবহন সংশ্লিষ্টদের তর্কবিতর্ক চোখে পড়েছে।


    যাত্রীরা অভিযোগ করছেন,এ যেন মগের মুল্লুক। সরকার বা কোনো সংস্থা নূন্যতম তদারকিও করছে না। ফলে যাত্রীরা পরিবহন চালকদের কাছে হেনস্থা হচ্ছে। জানা যায়,ঈদ পরবর্তী সময়ে রাস্তা অনেকটা ফাঁকা থাকলেও গণপরিবহন সংকটে অনেক জায়গাতেই লেগে ছিল যাত্রীদের ভিড়।


    প্রায় প্রতিটি লোকাল বাসই সিটিংকরে ফেলার নামে তিন গুণ চার গুণ ভাড়া হাঁকাচ্ছে। নয়তো তারা বাসে যাত্রীদের উঠতে দিচ্ছে না। হাতে গোণা দু’ একটি লোকাল বাস যাত্রী নিলেও তাতে ঠাসাঠাসি ভিড়ের কারণে যাত্রীদের প্রাণ ছিল ওষ্ঠাগত।


    এমন অভিযোগের কথা শুনে রবিবার (২৬ই আগস্ট) বিকেলে সরজমিনে সিরাজগঞ্জ বাস স্টেশন ও কাঠের পুলের রায়গঞ্জ সিএনজি স্টেশনে গেলে দেখা যায়, স্বাভাবিক ভাবে কাঠেরপুল থেকে রায়গঞ্জ ধানগড়া বাস্টেন্ড যেতে যাত্রীদের গুনতে হচ্ছে ৩৫ টাকা আর সেখানে গুনতে হচ্ছে ৫০-৬০ টাকা। 


    এদিকে এম,এ ,মতিন বাসস্ট্যান্ড থেকে সিরাজগঞ্জ রোডের ভাড়া আগে নিতো ১৫ টাকা এখন নেয় ৩০-৪০ টাকা, নলকা যাইতে ভাড়া নেয় ২০টাকা,আগে নিতো ১০টাকা। সিরাজগঞ্জ টু নলকা যাইতে সিএনজি ভাড়া নিচ্ছে ৪০টাকা ,আগে নিতো ২০টাকা। মাঝখানে রাস্তার করুন দশার কারনে ৫টাকা বাড়িয়ে ২৫ টাকা নিয়েছে ।


    শুধু তাই নয় বাস,সিএনজি ও অটোবাইক গুলোও রাস্তা খারাপের দোহাই দিয়ে ৫টাকা বাড়িয়ে ২০টাকা করেছে। এমন টাই অভিযোগ করে বলছিলেন নলকার কোরব আলী,ছোবাহান,কুদ্দুস,সুলতানসহ আরও অনেকে। তারা আরও বলেন, রাস্তা খারাপ ,আর এটার মাশুল দিতে হচ্ছে আমাদের মতো খেটে খাওয়া মানুষের। 


    উল্লেখিত ভাড়ার চিত্র শুধু রায়গঞ্জ আর নলকার নয় এ চিত্র সিরাজগঞ্জের সকল রোডের । ঈদের ৫ দিন পেরিয়ে গেলে ও পরিবহন চালকদের কাছে যেন ঈদ শেষ হচ্ছে না । ঈদের গন্ধে ভাড়া যেন আকাশ ছোয়া। যাত্রীদের অভিযোগ ইদানিং সব গুলো পরিবহনে চলাচল করতে মাত্রাতিরিক্ত ভাড়া গুনতে হচ্ছে এটা দেখার কি কেউ নেই? 


    প্রতিবেদন প্রস্তুতকালে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক শিক্ষক কাঠের পুল থেকে রায়গঞ্জের যাত্রী অট্রহাঁসি দিয়ে বললেন,সাশ্রয়ী কলরেট করার নামে যেমন ফোন থেকে টাকা কেটে নিচ্ছে মোবাইল কোম্পানীগুলো ঠিক তেমনি ঈদকে কেন্দ্র করে পরিবহন সেক্টর গুলো আমজনতার পকেট থেকে কেটে নিচ্ছে এই আর কি। 


    অপরদিকে সব অভিযোগের কথা স্বিকার করে সিএনজি চালকরা বলছেন, ঈদকে কেন্দ্র করে আমাদের গ্যাস তুলতে লং টাইম সিরিয়াল দিয়ে রাখতে হয় তাই আমরা একটু বেশী নিচ্ছি।

    অনলাইন নিউজ এডিটর ২৮ আগস্ট, ২০১৮ ১১:১১ পূর্বাহ্ন প্রকাশিত হয়েছে এবং 927 বার দেখা হয়েছে।
    পাঠকের ফেসবুক মন্তব্যঃ
    Expo
    Slide background EduTech EduTech EduTech EduTech EduTech EduTech
    Slide background SaleTech SaleTech SaleTech SaleTech SaleTech EduTech
    সিরাজগঞ্জ অন্যান্য খবরসমুহ
    সর্বশেষ আপডেট
    নিউজ আর্কাইভ
    ফেসবুকে সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ
    বিজ্ঞাপন
    সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ ফোকাস
    • সর্বাধিক পঠিত
    • সর্বশেষ প্রকাশিত
    বিজ্ঞাপন

    ভিজিটর সংখ্যা
    7947578
    ১০ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০৮:২৮ অপরাহ্ন