অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরী হচ্ছে শুটকি সম্ভবনা সত্বেও চলনবিলাঞ্চলে গড়ে উঠেনি মৎস্যভিত্তিক শিল্প
১৪ নভেম্বর, ২০১৮ ০৯:৪৯ পূর্বাহ্ন


  

  • তাড়াশ/ অন্যান্য:

    অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরী হচ্ছে শুটকি সম্ভবনা সত্বেও চলনবিলাঞ্চলে গড়ে উঠেনি মৎস্যভিত্তিক শিল্প
    ১৮ অক্টোবর, ২০১৮ ০৪:১৬ অপরাহ্ন প্রকাশিত

    এম এ মাজিদ: সিরাজগঞ্জ,পাবনা ও নাটোর জেলার ৯টি উপজেলার বির্স্তীন এলাকা জুড়ে চলনবিল অবস্থিত। এক সময় চলনবিল ছিল দেশীয় প্রজাতির মাছের জন্য বিখ্যাত। বিলে আগের মত প্রচুর পরিমানে দেশীয় প্রজাতির মাছ পাওয়া না গেলেও এখুনো বিভিন্ন প্রজাতির মাছ পাওয়া যায়।  জানা যায়, প্রতি বছর চলনবিল থেকে শত শত টন মাছ আহরণ করা হয়। এই বিপুল পরিমান মাছ প্রক্রিয়া ও বাজারজাত করণের কোন সুষ্ঠ ব্যবস্থাপনা নেই।

     

    বিল এলাকায় কোন মৎস্য সংরক্ষনাগার নেই। ফলে পচুর পরিমান মাছ পচে নষ্ট হয়ে যায়। সনাতন পদ্ধতিতে বিপুল পরিমান মাছ শুটকি করা হলেও তা স্বাস্থ্যসম্মত ও বৈঙ্ঘানিক উপায়ে করা হয় না। জেলেরা শুটকি উৎপাদনে ব্যবহার করেন কীটনাশক, আর পচন রোধে ব্যবহার করে ক্ষতিকর কীটনাশক। ফলে ওই এলাকার পরিবেশ দুষিত হয়ে নানা রোগের দেখা দেয়। শুটকি উৎপাদনে বিলাএলাকার জেলেদের অনেকাংশে নির্ভর করতে হয় প্রকৃতির উপর। এশুটকি অধিকাংশই মানসম্পন্ন হয় না। বরং অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে তৈরী ও মানবদেহের জন্য ক্ষতিকারক ওইসব শুটকি অনেকেরই স্বাস্থ্য সমস্যা দেখা দেয়। আবার অনেক সময় লাগাতার বৃষ্টি ও মেঘলা আবহাওয়ার কারনে দেশের এই মূল্যবান মৎস্য সম্পদ পচে নষ্ট হয়ে যায়। বিল এলাকার জেলেরা বাশের লাঠি দিয়ে মাচা তৈরী করে মাছ শুকিয়ে শুটকি করে।


     চলনবিলে মাছ (বিপণন) প্রক্রিয়াজাতকরণে কোন উপযুক্ত ব্যবস্থা (হিমাগার) স্থাপন করা হলে এ অঞ্চলে গড়ে উঠতে পাওে সর্ববৃহৎ শুটকি প্রক্রিয়াজাতকরণ এলাকা। মৎস্য ভিত্তিক শিল্প গড়ে উঠার রয়েছে চলনবিলে বিপুল সম্বাবনা। আর এর মাধ্যমেই এলাকার শ্রমজীবী মানুষের হবে কর্ম সংস্থানের ব্যবস্থা। 


    চলনবিলের তাড়াশ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা ড. মো.হাফিজুর রহমান বলেন, চলনবিলের শুটকি বাংলাদেশ তথা বিদেশেও রয়েছে ব্যাপক চাহিদা। বিপুল সম্ভাবনাময় চলনবিলের জেলেদের প্রশিক্ষনের মাধ্যমে শুটকি উৎপাদন ও এ এলাকায় মৎস্য সংরক্ষনাগার স্থাপন করা হলে এলাকায় বেকারত্ব দুরের পাশা-পাশি সরকারের প্রচুর পরিমান রাজস্ব আয় আসবে।
     

    সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট, তাড়াশ ১৮ অক্টোবর, ২০১৮ ০৪:১৬ অপরাহ্ন প্রকাশিত হয়েছে এবং 181 বার দেখা হয়েছে।
    পাঠকের ফেসবুক মন্তব্যঃ
    Expo
    Slide background EduTech EduTech EduTech EduTech EduTech EduTech
    Slide background SaleTech SaleTech SaleTech SaleTech SaleTech EduTech
    তাড়াশ অন্যান্য খবরসমুহ
    সর্বশেষ আপডেট
    নিউজ আর্কাইভ
    ফেসবুকে সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ
    বিজ্ঞাপন
    সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ ফোকাস
    • সর্বাধিক পঠিত
    • সর্বশেষ প্রকাশিত
    বিজ্ঞাপন

    ভিজিটর সংখ্যা
    7653638
    ১৪ নভেম্বর, ২০১৮ ০৯:৪৯ পূর্বাহ্ন