নাটোরে কেরোসিন চুলা বিস্ফোরন, কলেজ ছাত্রী নিহত
২৩ জুলাই, ২০১৯ ০৮:১৩ পূর্বাহ্ন


  

  • উত্তরবঙ্গ/ দূর্ঘটনা:

    নাটোরে কেরোসিন চুলা বিস্ফোরন, কলেজ ছাত্রী নিহত
    ০২ জুলাই, ২০১৯ ০১:০৮ অপরাহ্ন প্রকাশিত

    নাটোরে জ্যোতি ছাত্রী নিবাসে কেরোসিন চুলা বিস্ফোরনে অগ্নিদগ্ধ এনএস সরকারী কলেজের তিন ছাত্রীর একজন সানজিদা ইয়াসমিন সন্ধা মারা গেছেন। ঢাকা মেডিকেল কলেজের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার সকালে মারা যায়। নিহত সানজিদা ইয়াসমিন সন্ধা নাটোরের লালপুর উপজেলার আড়বাব ইউনিয়নের বড়বিলশা গ্রামের সাহাবুলু ইসলামের মেয়ে ও নাটোর নবাব সিরাজ-উদ দৌলা সরকারী কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্রী।

    লালপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও আড়বাব ইউনিয়নের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান ইছাহাক আলী এই মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান,মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সানজিদা শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করে। বার্ন ইউনিটে সে ৫ দিন মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়েছে। চুলার আগুনে তার শরীরের প্রায় ৬৫ ভাগ পুড়ে যায়। সানজিদার লাশ এলাকায় পৌঁছানোর পর জানাজা নামাজ ও দাফন কাজ সম্পন্ন করা হবে।

    সানজিদার বাবা কৃষক সাহাবুল ইসলাম বলেন, তিনি তার মেয়েকে উচ্চ শিক্ষায় শিক্ষিত করতে চেয়েছিলেন। তিনি স্বপ্ন দেখতেন তার মেয়ে একদিন সরকারের বড় কর্মকর্তা হবে।

    এনএস সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর শামসুজ্জোহা বলেন, সানজিদার অকাল মৃত্যুতে তারা শোকাহত। এই মৃত্যু মেনে নিতে কষ্ঠ হ”্ছ।ে তিনি বলেন যারা কলেজ হোস্টেলের বাহিরে মেসে থাকে তাদের খবর সব সময় নেওয়া সম্ভব হয়না। মেয়দের কলেজ হোস্টেলে থাকতে বলা হয়েছিল। তাদের জন্য আসনও বরাদ্দ করা হয়। কিন্ত তারা গিয়ে কোন একটি মেসে ওঠে। এঘটনায় দগ্ধ শামীমা তার প্রতিবেশী। তার অবস্থাও সংকটাপুর্ন। সেও ঢাকা মেডিকেলের বার্ন ইউনিটে চিকিৎসাদীন রয়েছে। শামীমার সুস্থতা কামনা সহ সানজিদার শোকহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান তিনি।

    উল্লেখ্য গত ২৭ জুন সকালে নাটোর শহরের বড়গাছা এলাকায় আবুল কাশেমের মালিকানাধীন জ্যোতি ছাত্রী নিবাসে অন্য দুই সহপাঠি শামিমা ও ফাতেমাতুজ্জোহার সাথে কেরোসিনের চুলায় রান্না করছিলেন সানজিদা ইয়াসমিন সন্ধা। এসময় হঠাৎ চুলাটি বিকট শব্দে বিস্ফোরিত হলে ওই তিন ছাত্রী একই সাথে দগ্ধ হয়। স্থানীয়রা দ্রুত তাদের উদ্ধার করে নাটোর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে অবস্থার অবনতি হলে সানজিদা ও শামিমাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সানজিদাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করা হয়।

    নিউজরুম ০২ জুলাই, ২০১৯ ০১:০৮ অপরাহ্ন প্রকাশিত হয়েছে এবং 102 বার দেখা হয়েছে।
    পাঠকের ফেসবুক মন্তব্যঃ
    Expo
    Slide background EduTech EduTech EduTech EduTech EduTech EduTech
    Slide background SaleTech SaleTech SaleTech SaleTech SaleTech EduTech
    উত্তরবঙ্গ অন্যান্য খবরসমুহ
    সর্বশেষ আপডেট
    বিশ্বকাপ ক্রিকেট

    নিউজ আর্কাইভ
    ফেসবুকে সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ
    বিজ্ঞাপন
    সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ ফোকাস
    • সর্বাধিক পঠিত
    • সর্বশেষ প্রকাশিত
    বিজ্ঞাপন

    ভিজিটর সংখ্যা
    10692606
    ২৩ জুলাই, ২০১৯ ০৮:১৩ পূর্বাহ্ন