সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ সিরাজগঞ্জের সব খবর, সবার আগেঃ SirajganjKantho.com

www.SirajganjKantho.com

জমজমাট হয়ে উঠেছে কামারখন্দ উপজেলার জামতৈলের মার্কেট গুলো
নিউজরুম ২৯-০৫-২০১৯ ০৪:৪১ অপরাহ্ন প্রকাশিতঃ প্রিন্ট সময়কাল Oct 19, 2019 04:35 AM
খাইরুল ইসলামঃ
 
ঈদকে সামনে রেখে জমজমাট হয়ে উঠেছে কামারখন্দ উপজেলার  জামতৈলের  মার্কেটের দোকান গুলো। অধিকাংশ মার্কেটের দোকান  সকাল থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত চলে কেনাবেচা। মার্কেটে তরুণীদের ভিড় একটু বেশি।
 
 এবারও ঈদের পোশাকে ভারতীয় চলচ্চিত্র ভিত্তিক পোশাকের আধিপত্য চলছে। দেশী পোশাকের তুলনায় বিদেশী পোশাকের দিকেই ক্রেতাদের মনোযোগ বেশি।
 
এবার ঈদের বাজারে এসেছে ভারত চলচ্চিত্রের নামে একাধিক পোশাক।
 
 দোকানিরাও ক্রেতাদের পছন্দ ও চাহিদামত শাড়ী, লুঙ্গী দোকানে উঠিয়েছেন। 
 
শাড়ী, লুঙ্গীর পাশাপাশি ক্রয় করছেন পাঞ্জাবী, বেডসিট, ছোটদের পাগলু, ঝিলিক, সোহানা, , লেহেঙ্গাসহ হরেক রকম রেডিমেট কাপড়। তবে শাড়ীর দোকানগুলোতে দেখা গেছে বিত্তশালীদে ভিড়। 
 
 বিক্রেতারা বলেন এবছর শিশুদের পোশাকের চাহিদাটা একটু বেশি। তাছাড়া পহেলা রমজান থেকেই বেচাকেনা শুরু হয়েছে। আশা করছি, শেষ রোজার রাত পর্যন্ত ভালোই বেচাকেনা হবে। 
 
জুতা ব্যবসায়ী জুয়েল (জুয়েল সুজ এর মালিক)  জানান, জুতার বেচাকেনা আছে মোটামুটি। তবে পুরোদমে বেচাকেনা শুরু হবে দুই তিন দিন পর থেকে। কয়েক ক্রেতা সিরাজগঞ্জ কন্ঠ কে অভিযোগ করে বলেন, জিনিসের দাম চড়া যে শার্ট প্রায়২০০-২৫০ টাকায় কিনতাম সেই শার্ট প্রায় ৫৫০-৬০০টাকায় কিনতে হচ্ছে। যে প্যান্ট আগে কিনতাম প্রায় ৫৬০-৬০০সেই প্যান্ট এখন বিক্রয় হচ্ছে প্রায় ৮৫০-১২০০টাকা। জুতার দাম ও বেশ চড়া। ক্রেতারা আরো অভিযোগ করেন দুবাই, সৌদি আরব সহ মুসলিম বিভিন্ন দেশে রোজা উপলক্ষে জিনিস পত্রের দাম কমে আর আমাদের বাংলাদেশে রোজার ঈদ উপলক্ষে গর্বের সাথে দাম বাড়ায়।  এটা নিয়ে প্রশাসনের একটু নজর দেওয়া দরকার।  তাছাড়া আমরা সাধারণ মানুষ  কেমন করে কেনাকাটা করবো।


২৯-০৫-২০১৯ ০৪:৪১ অপরাহ্ন প্রকাশিত
http://sirajganjkantho.com/cnews/newsdetails/20190529164120.html
© সিরাজগঞ্জ কন্ঠ, ২০১৬     ||     A Flashraj IT Initiative